সংবাদ প্রকাশের পর বাঁকড়ার আলোচিত সায়েরা সার্জিক্যাল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার সিলগালা


Sarsa Barta প্রকাশের সময় : জানুয়ারি ২৫, ২০২৩, ১০:৫৭ অপরাহ্ণ /
সংবাদ প্রকাশের পর বাঁকড়ার আলোচিত সায়েরা সার্জিক্যাল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার সিলগালা

আরিফুজ্জামান আরিফ।। বিভিন্ন গণমাধ্যমে গত ২৩ জানুয়ারি মঙ্গলবার” সিজারের পরে পেটে গজ রেখে সেলাই করাই মৃত্যু পথযাত্রী প্রসূতি” শিরোনামে নিউজ প্রকাশ হওয়ায় ঝিকরগাছার বাঁকড়ায় বহুল আলোচিত সায়েরা সার্জিক্যাল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারটি সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে।

বুধবার সকালে যশোর জেলা সিভিল সার্জন বিপ্লব কান্তি বিশ্বাস এর নির্দেশনায় ঝিকরগাছা উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিষয়ক কর্মকর্তা রাশেদুল আলম ওই ক্লিনিকটি অনির্দিষ্টকালের জন্য সিলগালা করে দেয়। এসময় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডা: প্রতাপ কুমার রায়, ডা: আনোয়ার জাহিদ ও মেডিকেল এসিস্ট্যান্ট সাইফুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

ঝিকরগাছা উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিষয়ক কর্মকর্তা রাশেদুল আলম জানান, বিভিন্ন গণমাধ্যমে নিউজ প্রকাশের পর যশোর জেলা সিভিল সার্জন বিপ্লব কান্তি বিশ্বাস সায়েরা সার্জিক্যাল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারটি সিলগালা করার নির্দেশনা দেন। তারই পরিপেক্ষিতে বুধবার ক্লিনিকটি সিলগালা করে অনির্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয়। পরবর্তী সিদ্ধান্ত না আসা পর্যন্ত ক্লিনিকের সমস্ত কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। এ নির্দেশা অমান্য করলে কঠোর শাস্তির বিধান রয়েছে।

উল্লেখ্য : গত ১৪ই নভেম্বর বাঁকড়া সায়েরা সার্জিক্যাল ক্লিনিক এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে সিজারিয়ান অপরেশনের সময় মুসলিমা খাতুন (২৮) নামে এক রোগীর পেটে গজ (মফ) রেখে সেলাই করে দেয়ার অভিযোগ ওঠে চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে।

এ ঘটনার কিছুদিন পরে রোগীর ঐ স্থানে ব্যাথা হতে থাকে । এমনকি  পচন ধরতে শুরু করায় পুণরায় অপারেশন করে ওই রোগীর পেট থেকে গজ (মফ)  অপারেশন করেন চিকিৎসকরা।

এঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হওয়ার পাশাপাশি সাধারণ মানুষের মাঝে এক প্রকার বিষয়টি নিয়ে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করে। এঘটনায় উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নিকট সুষ্ঠ তদন্ত সাপেক্ষে ক্লিনিকটি বন্ধ সহ ক্ষতিপূরণ দাবী জানান ভুক্তভোগী পরিবার ও এলাকা বাসী।

%d bloggers like this: